Wednesday , November 14 2018
Home / খেলাধুলা / স্মিথের চোখে বাংলাদেশ ভয়ংকর

স্মিথের চোখে বাংলাদেশ ভয়ংকর

অনলাইন ডেস্কঃ সিরিজ শুরুর আগে ফেভারিট বাছেননি অস্ট্রেলিয়াকে, বাংলাদেশকে নিয়ে সমীহ ছিল শব্দচয়নে। স্টিভেন স্মিথ  যে স্রেফ ক্রিকেটীয় ভদ্রতা দেখাননি, সেটা স্পষ্ট হয়ে গেল ঢাকা টেস্টের ফলে। প্রথম অস্ট্রেলিয়ান অধিনায়ক হিসেবে বাংলাদেশের কাছে টেস্টে হারের কলঙ্কটা যে লেগে গেল স্মিথের ক্যারিয়ারেই। ম্যাচ শেষে সংবাদ সম্মেলনে এসেও স্মিথের অকপট বক্তব্য, এই বাংলাদেশ ভয়ংকর!

‘গত বছর দুয়েকে বাংলাদেশ অনেকটা পথ পাড়ি দিয়েছে। তারা এখন ভয়ংকর দল, বিশেষ করে নিজেদের মাঠে। মাত্রই তারা আমাদের হারিয়েছে, ইংল্যান্ডের বিপক্ষে জয়টাও খুব বেশি দিন আগের কথা নয়, তারা এমন একটা দল যারা এই কন্ডিশনে অত্যন্ত আত্মবিশ্বাসী’, মাইক্রোফোনের সামনে এসে এটাই ছিল বাংলাদেশকে নিয়ে স্মিথের মূল্যায়ন।

সেই সঙ্গে প্রশংসা বাংলাদেশের জয়ের দুই প্রধান কারিগর সাকিব আল হাসান ও তামিম ইকবালের, ‘তামিম টপ অর্ডার ব্যাটসম্যান হিসেবে খুবই ভালো, দারুণ আক্রমণাত্মক ক্রিকেট খেলেছে। সাকিব প্রথম ইনিংসে ভালো ব্যাটিং করেছে আর দুই ইনিংসেই ভালো বোলিং করেছে। বাংলাদেশের অভিজ্ঞ খেলোয়াড়রা দলের প্রয়োজনের মুহূর্তে জ্বলে উঠেছে। ’

হারের পর অস্ট্রেলিয়ান অধিনায়ককে বেশ বাক্যবাণই সইতে হচ্ছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। বিশেষ করে বেতন-ভাতা নিয়ে ধর্মঘটের পর বাংলাদেশের বিপক্ষে হারতে দেখে একজন তো টুইটারে বলেই বসেছেন, ‘তাদের কি বাংলাদেশের কাছে হারার জন্য একগাদা টাকা দেওয়া হচ্ছে?’ অবশ্য স্মিথ মনে করেন, মাত্র ২০ রানে নিষ্পত্তি হওয়া ম্যাচটি তাঁর দল হেরেছে ছোট ছোট কিছু ভুলের কারণে, ‘প্রথম ইনিংসে বাংলাদেশকে ২৬০ রান করতে দেওয়া আর তামিম ও সাকিবের জুটিটাই আমাদের ভুগিয়েছে।

তাদেরকে আমরা একটু বেশিই রান করতে দিয়ে দিয়েছি, ১৮০ থেকে ২০০ রানের ভেতর প্রথম ইনিংসটা শেষ করে ফেলতে পারলে ভালো হতো। এরপর ব্যাটিংটাও ভালো হয়নি। আর উপমহাদেশে শেষ ইনিংসে ব্যাট করাটাও খুব কঠিন। ’

বাংলাদেশের কাছে হেরে টেস্ট র‌্যাংকিংয়ে পাঁচে নেমে গেছে অস্ট্রেলিয়া, চট্টগ্রামে হারলে নেমে যেতে হবে ছয়েও। সেই দুঃস্বপ্ন নিশ্চয়ই তাড়া করে ফিরছে স্মিথকে!

টপারবিডি/বাংলা ৭৭ম

আরও পড়ুন

তামিমের অনন্য অর্জন একই দিনে দুটি রেকর্ড!!

অনলাইন ডেস্কঃ আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে রেকর্ডের বরপুত্র বলা হতো ক্যারিবিয়ান গ্রেট ব্রায়ান লারাকে। বাংলাদেশের ক্ষেত্রে এই …